সহযোগী অধ্যাপক হচ্ছেন বি সি এস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারভুক্ত ৩৪২ জন শিক্ষক

সহযোগী অধ্যাপক হচ্ছেন বি সি এস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারভুক্ত ৩৪২ জন শিক্ষক

 

সহযোগী অধ্যাপক হচ্ছেন বি সি এস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারভুক্ত ৩৪২ জন শিক্ষক। শনিবার (২৯ অক্টোবর)শিক্ষা সচিবের সভাপতিত্বে বিভাগীয় পদোন্নতি কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে সহকারী অধ্যাপক থেকে সহযোগী অধ্যাপক পদে ৩৪২ জন শিক্ষকের পদোন্নতির সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হয়।

 

ডিপিসির সভাসূত্রে জানা যায়, সহযোগী শুধু শূন্য পদের বিপরীতে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। আজ রোববার পদায়নসহ প্রজ্ঞাপন জারির সম্ভাবনা রয়েছে। দরজা বন্ধ করে পদায়ন বসাচ্ছেন মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা। ডজন ডজন শিক্ষক মন্ত্রণালয়ে দেখা গেছে ভালো পদায়ন লাভের আশায় তদবির করতে।

 

অপর এক সূত্র জানায়, তথ্য যাচাই-বাছাইয়ে দেরি হওয়ায় প্রভাষক থেকে সহকারী অধ্যাপক পদে পদোন্নতি দেয়ার প্রক্রিয়া ফের পিছিয়ে দেয়া হয়েছে। আগামী সপ্তাহের মধ্যে পদোন্নতির সভা করা চেষ্টা চলছে।

 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক কর্মকর্তা দৈনিকশিক্ষাকে বলেন, প্রভাষকদের পদোন্নতিতে কোনো আইনী জটিলতা নেই, তাই ভালোভাবে যাচাই-বাছাই শেষে কদিন পরে পদোন্নতি দিলেও কোনো ক্ষতি নেই। এমনটাই বিবেচনা করে ফের পিছিয়েছে।

 

বি সি এস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারভুক্ত কর্মকর্তারা সরকারি কলেজ ও মাদ্রাসায় শিক্ষকতা করেন। তারা আলাদা ক্যাডার এবং তাদের নিয়ন্ত্রণ করেন প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তারা।

 

শিক্ষা ক্যাডারে পদোন্নতি ও পদায়ন নিয়ে দীর্ঘকাল যাবত স্বজনপ্রীতি, মরা মানুষকে পদোন্নতিসহ নানা অনিয়ম ও দুর্নীতি চলে আসছে।

 

কখনো লেংথ, কখনো ফিডার ইত্যাদি বিবেচনায় পদোন্নতি দেয়া হয়। আবার বিষয়ভিত্তিক পদোন্নতি দেয়া নিয়েও রয়েছে উচ্চ আদালতের আদেশ।

 

তবে, দুদফায় প্রায় ছয়শ অধ্যাপকের পদোন্নতি দিয়ে বেশ সুনাম কুড়িয়েছে মন্ত্রণালয়।

Shere This..
X

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *